নারায়ণগঞ্জ টাইমস | Narayanganj Times

শনিবার,

১৯ জুন ২০২১

‘আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী’র মানববন্ধনে

গ্যাস, পানি ও চিকিৎসা সংকট সমাধানের দাবী 

প্রকাশিত:১৯:১০, ৮ জুন ২০২১

গ্যাস, পানি ও চিকিৎসা সংকট সমাধানের দাবী 

গ্যাস পাইপ পরিবর্তন, নগরবাসীর জন্য নিরবিচ্ছিন্ন পর্যাপ্ত বিশুদ্ধ পানি সরবরাহ এবং ঔষধের খুচরা মূল্য ও বিভিন্ন ডায়াগনষ্টিক সেন্টারের বিভিন্ন পরীক্ষা নিরীক্ষা ফি কমানো সহ ৩ দফা দাবীতে মানববন্ধন করেছে আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী। মঙ্গলবার (৮ জুন) সকালে শহরের বঙ্গবন্ধু সড়কের চাষাড়ায় নারায়ণগঞ্জ প্রেসক্লাবের সামনে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়।


সংগঠনের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ নুর উদ্দিন আহম্মেদ সভাপতিত্বে মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন আলহাজ¦ রমজান উল রশিদ, গাহী আহাম্মদ আলী বেপারী, হাজী লোকমান আহমেদ, বদরুল হক, জাহাঙ্গীর কবির পোকন, মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার ও সাবেক কমিশনার আজাহার হোসেন, দুলাল মল্লিক, মাকিদ মোস্তাকিম শিপলু, অহিদুজ্জামান, ওয়াহিদ সাদাত বাবু, জহিরুল ইসলাম মিন্টু, মোস্তফা কামাল, আব্দুল হাই। উপস্থিত ছিলেন- সভাপতি ও সম্পাদক মন্ডলীর সদস্যবৃন্দের মধ্যে জনাব খাজা আহমেদ, হাজী মনির হোসেন, শ্রমিকনেতা সাইফুল ইসলাম, নাজমুল হাসান নান্নু, মোঃ বাবুল, পনিক সভাপতি সেলিম, মোঃ রফিক, আবুল সরদার ও সেলিম হোসেন সহ অসংখ্য নেতৃবৃন্দ।


এ সময় বীরমুক্তিযোদ্ধা আলহাজ¦ নূর উদ্দিন আহমেদ তার বক্তব্যের বলেন, ২০১৫ সালে যখন তিতাস কোম্পানী ১২'' পাইপ লাইন গোদনাইল থেকে চাষাড়া হয়ে পঞ্চবটি পর্যন্ত স্থাপন করে তখন আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী লাইনের পাশে জনগণের সমর্থন আদায়ে তিতাসকে সার্বিক সহযোগিতা করেছি। তখন তৎকালীন তিতাসের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নারায়ণগঞ্জবাসীকে চাষাড়া থেকে নিতাইগঞ্জ পর্যন্ত একটি ৬'' পাইপ লাইন স্থাপনের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন। 


আমরা সে প্রতিশ্রুতি ৬'' পাইপ লাইন দ্রুত স্থাপন সহ পুরোনো সকল পাইপ লাইন পরিবর্তন করে নতুন পাইপ লাইন স্থাপনের জোর দাবী জানাই এবং নারায়ণগঞ্জ সিটি কর্পোরেশন এলাকায় ০১ জুন ২০২১ থেকে দুই দফায় সকাল ও বিকাল পানি সরবরাহের কারণে নগরবাসীর চাহিদা পূরণ হচ্ছে না। 


যে কারণে বিভিন্ন ওয়ার্ডে পাড়া মহল্লা তীব্র পানি সংকট দেখা দিয়েছে। এমতাবস্থায় আমরা প্রয়োজনীয় পানির চাহিদা পূরণে ভোর ৪টা থেকে রাত ১০টা পর্যন্ত নিরবিচ্ছিন্ন ভাবে পানি সরবরাহের জন্য সরবরাহকারী কর্তৃপক্ষকে অনুরোধ জানাই।


সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মো. নাসির উদ্দিন মন্টু তার বক্তব্যে বলেন নারায়ণগঞ্জে বিভিন্ন সমস্যা নিয়ে আমরা নারায়ণগঞ্জবাসী সংগঠনের পক্ষ থেকে সমস্যাদি পরিত্রাণের জন্য সভা, সমাবেশ, মানববন্ধন করে আসছে। এরই মধ্যে দেখা যাচ্ছে গ্যাস, পানি সংকট সহ বিভিন্ন হাসপাতাল, ডায়াগনষ্টিক সেন্টারের নানাবিধ অনিয়ম দেখা যাচ্ছে। 


ঔষধ শিল্পে মূল্য সংক্রান্ত বিষয়ে জনগণের কাছ থেকে এমআরপি খুচরা বিক্রয় মূল্য নামে যে মূল্য নেওয়া হয় তার চেয়ে ১৫-২৫% কমমূল্যে অধিকাংশ পাইকারী দোকানগুলো থেকে তা বিক্রিত হয়, তাই আমাদের প্রস্তাব সকলের ঔষধের মূল্য যৌক্তিক পর্যায়ে এবং জনগণের ক্রয় ক্ষমতায় রাখার জন্য নূন্যত পক্ষে ২০% কমিয়ে দেওয়া হউক। যার প্রভাব সকল খুচরা দোকানগুলোতে থাকবে। 


সংগঠনের যুগ্ম সম্পাদক মাহমুদ হোসেন বলেন গ্যাস, পানি, ঔষধ, ডায়াগনষ্টিক সেন্টার এবং সরকারি হাসপাতাল সহ প্রাইভেট ডাক্তারদের নানাবিধ সমস্যা দেখা দিয়েছে। যেমন- নারায়ণগঞ্জ ভিক্টোরিয়া হাসপাতালের ডাক্তার ৫নং ঘাট মসজিদের খাদেমের ডায়ারিয়া হয়, তাকে খেতে দে গ্যাসটিকের ঔষধ ও প্রেসক্রিপসনে লিখে দেয় এক্সরে ও নানা ধরনের পরীক্ষা করতে হবে এবং নির্দিষ্ট ডায়াগনষ্টিক সেন্টারের নাম লিখে দেয় এবং বিভিন্ন ডাক্তারদের কাছে ভিজিট করে ঔষধ কোম্পানীর ব্যক্তিরা। 


যেখানে ডাক্তাররা যে কোম্পানীর কমিশন বেশী সে কোম্পানীর ঔষধ লিখে দেয়। এতে রোগ ভাল হউক বা না হউক, তাদের কিছু আশে যায় না, কোন কোন ডাক্তার বিভিন্ন ডায়াগনষ্টিক সেন্টারের পরীক্ষা নিরীক্ষার তালিকায় ৩০% ছাড়ও লিখে দেন। এখানে বুঝা যায়, ডায়াগনষ্টিক সেন্টারগুলো কী ধরনের লোটপাট শুরু করেছে জনগণের টাকা, এই বিষয়ে গোয়েন্দাদের নজরদারী আশা করছে। 


এছাড়াও তিনি নারায়ণগঞ্জ শহরতলীতে পুরাতন গ্যাস পাইপ বাতিল করে নতুন গ্যাস পাইপ স্থাপন এবং আগামী জুন ২০২১-২২ অর্থ বছরে নাসিরের বাজেটে নতুন কোন কর ট্যাক্স না বাড়ানোর জন্য জোড়ালো দাবী জানান। এবং বর্তমানে জন্মনিবন্ধন, মৃত্যু সনদ নিয়ে যে ধরনের জটিলতার সৃষ্টি হচ্ছে, এগুলি জনভোগান্তি না করে সহজ শর্তে জরুরী ভিত্তিতে করার জন্যও জোড়ালো দাবী জানান তিনি।
 

সম্পর্কিত বিষয়: