নারায়ণগঞ্জ টাইমস | Narayanganj Times

বুধবার,

২০ অক্টোবর ২০২১

ফেসবুকে শাহ নিজামের স্ট্যাটাস

‘হকাররা ফুটপাত দখল করেছে পেটের দায়ে, আর মেয়র দখল করেছে বাবার নামে’

নারায়ণগঞ্জ টাইমস:

প্রকাশিত:২৩:০২, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১

‘হকাররা ফুটপাত দখল করেছে পেটের দায়ে, আর মেয়র দখল করেছে বাবার নামে’

নারায়ণগঞ্জ মহানগর আওয়ামীলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ নিজাম।  নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সংসদ সদস্য শামীম ওসমানের আস্তাভাজন নেতা। রাজনীতির  দীর্ঘ ৩৪ বছর ধরে শামীম ওসমানের সাথেই আছেন। সাংগঠনিক তৎপরতায় যুব রাজনীতিতেও তার অবস্থান মজবুত।

রাজনৈতিক মঞ্চের বক্তব্যের বাইরেও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে দলের পক্ষে, দলের ত্যাগি নেতাকর্মীদের পক্ষে কথা  বলেন। স্ট্যাটাস দেন। হাইব্রিড নেতৃত্ব মেনে নিতে পারেন না। যারা দলের জন্য রাজনীতি না করে নিজের জন্য রাজনীতি করে তাদের সহ্য করতে তার কস্ট হয়।

শুক্রবার (২৪ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাতে নিজের ফেসবুক আইডি থেকে একটি স্ট্যাটাস দিয়ে মনের অভিব্যক্তি প্রকাশ করেছেন রাজপথের তুখোড় নেই নেতা। নাসিক মেয়র আইভীকে নিয়ে তার দেয়া স্ট্যটাসটি এখানে হুবহ তুলে ধরা হলো-

"প্রিয় নারায়নগন্জবাসী,,আসসালামু আলাইকুম। এই নারায়ণগঞ্জ আমাদের প্রানের শহর। ইতিহাসের ঐতিহ্যের শহর এই নারায়ণগঞ্জ। আমাদের অক্সিজেন এই শহর। যদিও ঢাকায় থাকি সন্তানের পড়ালিখার প্রয়োজনে।এর মানে এই না যে নারায়ণগঞ্জ এ পড়ালিখার সুযোগ নাই।তবে মানের কিছুটা ব্যাপার আছে। আমাদের নারায়ণগঞ্জে কি আমাদের সন্তানদের জন্য আধুনিক উন্নত শিক্ষা ব্যাবস্তা করতে পারতাম না?? সত্যি বলতে আমরা পারিনি। বাবা অসুস্থ মা ও তখন অসুস্থ ছিলো। উন্নত চিকিৎসার প্রয়োজনে সবাইকে নিয়ে ঢাকায় চলে আসতে হয়েছে। আমরা চাইলে কি একটা ভালো আইসিও ব্যাবস্তা সহ হসপিটাল করতে পারতাম না। পারতাম কিন্তু সত্যি বলতে আমরা করতে পারিনি।গত ১০ বছর হলো আমাদের নারায়ণগঞ্জ পৌরসভা থেকে সিটিকর্পোরেশন হয়েছে কিন্তু সত্যি বলতে আমাদের শহরের কোন উন্নতি হয়নি। রাস্তা ঘাটের উন্নয়নের কথা বলবেন। এটার সাথে আমি একমত না। এটা মেয়রের উন্নয়নের মধ্যে পরে না।এসব ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মেম্বাররাও করে।কোন নাগরিক সুবিধা নারায়ণগঞ্জ বাসী পায়নি। অবশ্য টেক্স বাড়ছে। কিছুটা হলেও এদিকে উন্নতি হয়েছে, তাই বলে উন্নয়ন হয়নি।একটা মানুষ দীর্ঘ ১৮ বছর এই শহরের দায়িত্ব নিয়ে কি করেছেন?? জবাব দিতে পারবেন জনগনের?? দিবেন না জবাব কারন উনি মুখে জনগনের কথা বললেও আদতে উনি জনগনের নেত্রী না।উনি কিছু স্বাধীনতা বিরোধী শক্তি জামাত,, বিএনপি ও কিছু সুশীল নিয়ে তাদের প্রেসক্রিপশনে কাজ করেন। দীর্ঘ ১৮ বছর ক্ষমতায় আছেন যার জন্য উনি এখন কাউকে তোয়াক্কা করেন না। আমার লিখা যারা পড়বেন, আপনারা তো মানুষ তাই না,,নিজের বিবেককে প্রশ্ন করে দেখুন আমরা কি নাগরিক সুবিধা পাওয়ার কথা ছিলো আর কি পেয়েছি?? গাজীপুরের অবস্থা দেখুন আর আমাদের অবস্থা দেখুন। গত করোনায় উনি ডাক্তার হয়েও মানুষের পাশে এসে দাড়ায়নি। আমার কথা যদি সত্যি হয় তাহলে আগামী দিনে নিজের ভাগ্যের পরিবর্তন আপনাকেই করতে হবে বিবেককে জাগ্রত করে পরিবর্তনের মধ্য দিয়ে। শহরে তো চলাচলের অযোগ্য। উনি দোষ দিচ্ছেন হকারদের। ফুটপাত দখল করেছে হকাররা।হকাররা তো পেটের দায়ে ফুটপাত দখল করেছে আর মেয়র তো বাবার নামে অডিটরিয়াম করতে যেয়ে নিজেই ফুটপাত দখল করেছেন। কি করেননি??? এতোদিনে নারায়নগঞ্জে উড়াল সড়ক করা যেতো যতোদিন উনি দায়িত্বে আছেন। ভুল বলে থাকলে ক্ষমা করবেন আর সত্যি বললে পরিবর্তন করবেন এটাই প্রত্যাশা ইতিহাসের ঐতিহ্যের শহর নারায়ণগঞ্জবাসীর কাছে। ভালো থাকবেন সবাই।"

সম্পর্কিত বিষয়: