নারায়ণগঞ্জ টাইমস | Narayanganj Times

বুধবার,

২০ অক্টোবর ২০২১

ফতুল্লার পিলকুনিতে জুয়ারী শুভ বাহিনী বেপোরায়া

নারায়ণগঞ্জ টাইমস

প্রকাশিত:২০:০৬, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

ফতুল্লার পিলকুনিতে জুয়ারী শুভ বাহিনী বেপোরায়া

সরকার দলীয় সাইনবোর্ড ব্যবহার করে ফতুল্লার পিলকুনিতে ছাত্রলীগ নামধারী সন্ত্রাসী ইমরান হেসেন শুভ ওরফে জুয়ারী শুভ ও তার বাহিনীর সমাজ বিরোধী নানা অপরাধমূলক কর্মকান্ড স্থানীয়বাসীর জীবন-যাত্রাকে করে তুলেছে অসহনীয় যন্ত্রনাময়।


 তথ্য মতে, কথিত ছাত্রলীগ নেতা  ইমরান হোসেন শুভ ওরফে জুয়ারি শুভ'র নেতৃত্বে উঠতি বয়সী এক শ্রেনীর মাদকাসক্তরা বাহিনী গড়ে তুলে  সমাজ বিরোধী নানা সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের জন্ম স্থানীয় সর্বমহলে মূর্তিমান আতংকে পরিনত হয়েছে। 


জানা  যায়, ছাত্রলীগ নেতার পাশাপাশি জুয়ারি শুভ নিজেকে র‌্যাবের সোর্স পরিচয় বহন করে পিলকুনি এলকা জুড়ে গড়ে তুলেছে ত্রাসের রাম-রাজত্ব। এই বাহিনীর সদস্যরা দলবেঁধে মাদক সেবন করার পাশাপাশি পাড়া-মহল্লায় স্কুল- কলেজগামী ছাত্রীদের উত্ত্যক্ত করে থাকে।

 

নারী দিয়ে ব্ল্যাক মেইলিংয়ের পাশাপাশি পথচারীদের কাছ থেকে টাকা,মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে যাচ্ছে। ঝুঁকিপূর্ণ বাইক ও কার রেসিং তাদের ‘ফ্যাশন’।  সামান্য তুচ্ছ ঘটনাক কেন্দ্র করে  জন্ম দিয়ে থাকে নানা সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের ঘটনা। ‘ভার্চুয়াল’ জগতে ‘সিক্রেট গ্রুপ’ তৈরি করে এরা নিজেদের মধ্যে যোগাযোগ স্থাপন করছে। সেখানে ভয়ঙ্কর ‘সিক্রেট মিশনের’ খুঁটিনাটি বিষয়ের পরিকল্পনা করে থাকে। জুয়ারি 


শুভর আর্শিবাদপুষ্ট এসব কিশোরদের অত্যাচারে ফতুল্লার  শিয়াচর, পিলকুনি,ব্যাংক কলোনী এলাকাবাসী রীতিমতো  অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে।


একাধিক সূত্র মতে, দাপা আদর্শ স্কুলের আশে পাশে তিন তাসের জুয়া ও বিভিন্ন বাসা বাড়িতে জুয়ার আসর বসানোর অভিযোগ আছে শুভ বাহিনীর বিরুদ্ধে। জুয়ারি শুভ'র জুয়া খেলার একটি ভিডিও গত এক বৎসর পূর্বে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পরেছিলো। এছাড়াও মদ খাওয়ার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইবুকে ভাইরাল হয়েছে।


সর্বশেষ ২৬ সেপ্টেম্বর সোমবার  পিলকুনি এলাকায় কিশোর গ্যাং লিডার ইমরান হোসেন শুভর নেতৃত্বে সংখ্যালঘু পরিবারের উপর হামলা চালিয়েছে । এসময় হামলাকারীরা পার্থ চন্দ্র দাস(২৬) নামক এক যুবক কে কুপিয়ে রক্তাক্ত জখম করে ও ওই বাড়ীতে বেড়াতে আসা দুই নারী সদস্য কে মারধর সহ ব্যাপক ভাংচুর চালিয়ে ক্ষতিসাধন করছে বলে জানা যায়।

 

এব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানায় শুভ, সিনহা, আরিফসহ ১০/১২ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেছে।  গত ২৪ আগষ্ট এক প্রবাসীর বাড়ি ঘরে হামলা সহ মারধর করেছে ওই এলাকার আতংক  শুভ, নিলয়, রাজু সহ মুক্তি বাহিনীর সদস্যরা।


 এ বিষয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় ওই প্রবাসীর স্ত্রী রুমা একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন। পরে বিষয়টি দুই পক্ষকে ডেকে থানায় আপোষ মিমাংসা করে দেয়। এক বছর পূবে ব্যাংক কলোনী এলাকার স্বজলের ছেলে দাপা আদর্শ স্কুলের ছাত্র অরন্যাকে মারধর করে অপহরনে চেস্টা করে। এ ব্যাপারে ফতুল্লা মডেল থানায় অভিযোগ করা হয়েছিল। 


গত ১৪ জুন রাত ৯ টায় শুভর নেতৃত্বে ৫/৬ জন লাভলু নামের এক যুবককে পিলকুনি নূর মসজিদের সামনে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে মারধর করে গুরুত্ব জখম করে এঘটনায় লাভলু চিৎকিসা শেষে রাতেই ফতুল্লা মডেল থানায় অভিযোগ দায়ের করে।

 

২০২০ সালের ৯ মে রাফিউল ইসলাম উদয় ও রাকিবুল ইসলামকে অস্ত্র ঠেকিয়ে মারধর করে ১৩ হাজার টাকা ছিনতাই করে জীবন নাশের হুমকি দেয় কথিত থানা ছাত্র লীগ নেতা সামিউন সিনহা ও ইমরান হোসেন শুভ। এ ব্যপারে রাফিউল ইসলাম উদয় বাদী হয়ে ফতুল্লা মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করে। 


২০২০ সালের ৬ জুন  ফতুল্লা ইউনিয়ন ১, ২ ও ৩ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক ওমর ফারুকের বাড়িসহ এলাকার সাধারণ লোকজনের বাড়ি ঘর ব্যাপক ভাংচুর করে ইমরান হোসেন শুভর নেতৃত্বে কিশোর গ্যাং। 


এসময় বাড়ির গেইট, জানালা, দোকানের শার্টার দা দিয়ে কুপিয়ে ছিদ্র করে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি করে। তান্ডবে ভয়ে এলাকাবাসী বাসা বাড়ির বাতি নিভিয়ে চিৎকার করতে থাকে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে ধাওয়া করে একজনকে গ্রেফতার করে। ওমর ফারুক নিজেই বাদী হয়ে মোবারক হোসেন ইমরান হোসেন শুভসহ ৪ জনের নাম উল্লেখ করে ৩০জনের বিরুদ্ধে মামলা করে। 


এলাকাবাসী জানান, শুভ নিজেকে হঠৎ ছাত্রলীগ নেতা পরিচয় দিয়ে কিশোর গ্যাং দিয়ে এলাকায় প্রভাব বিস্তার করে আছে। নিজে মাদক বিরোধী র‌্যালী করে আবার নিজেই মাদক ব্যবসায়ীদের সাথে সঙ্গ দিয়ে আসছে।


একাধিক সূত্র মতে, দাপা আদর্শ স্কুলের আশে পাশে তিন তাসের জুয়া ও বিভিন্ন বাসা বাড়িতে জুয়ার আসর বসানোর অভিযোগ আছে শুভ বাহিনীর বিরুদ্ধে। জুয়ারি শুভ'র জুয়া খেলার একটি ভিডিও গত এক বৎসর পূর্বে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পরেছিলো। এছাড়াও মদ খাওয়ার ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেইবুকে ভাইরাল হয়েছে।


স্থানীয়বাসীর দাবী,শির্ষস্থানীয় এক আওয়ামীলীগ নেতা ও জেলা ছাত্রলীগের এক নেতার আর্শীবাদে জুয়ারি শুভ বেপোরোয়া হয়ে উঠেছে। স্থানীয় প্রশাসনের পাশাপশি সরকারদলীয় শির্ষ নেতাদের সাথে জুয়ারি শুভ'র গভীর সখ্যতা থাকায় তার বাহিনীর হাতে নির্যাতনের শিকার হলেও ভয়ে কেহ টু শব্দটি পর্যন্ত করেনা।

 

আর স্থানীয়বাসী জুয়ারি শুভ ও তার বাহিনীর নির্যাতনের কবল থেকে রেহাই পেতে জেলা পুলিশ সুপারের হস্তক্ষেপ কামনা করেছে।